শিরোনাম
প্রচ্ছদ / রাঙ্গামাটি / জঙ্গি অর্থায়নের অভিযোগে তিন পাহাড়ীর ব্যাংক হিসাব জব্দ

জঙ্গি অর্থায়নের অভিযোগে তিন পাহাড়ীর ব্যাংক হিসাব জব্দ

॥ গিরিদর্পণ ডেক্স ॥ জঙ্গি ও রাষ্ট্রবিরোধী কাজে অর্থায়নে জড়িত থাকার অভিযোগে ৩ পাহাড়ীর ব্যাংক হিসাব জব্দ করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এছাড়া এদের হিসাব খোলার ফরম, কেওয়াইসি প্রোফাইল ফরম, হিসাব বিবরণী ও আনুষঙ্গিক কাগজপত্র বাংলাদেশ ব্যাংকে পাঠানোর জন্য সংশ্লিষ্ট ব্যাংককে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংকের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে।
অভিযুক্তরা হলেন- ডা. রেনিন সুয়ে, মং প্রু চিং মারমা, চিংনু মারমা। এদের মধ্যে ডা. রান উইন সো এবং মং প্রু চিং মারমার ব্যাংক হিসাব রয়েছে ফার্স্ট সিকিউরিটি ব্যাংকের চট্টগ্রামের দোভাসি বাজার শাখায়। চিংনু মারমার ব্যাংক হিসাব রয়েছে কৃষি ব্যাংকের রাঙ্গামাটি শাখায়।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, ডা. রান উইন সো, মং প্রু চিং মারমা, চিংনু মারমার বিরুদ্ধে সন্ত্রাস বিরোধী আইন ২০০৯ এর ৬(১)/৭/১০/১৪ ধারা অনুযায়ী ২০১৫ সালের ৮ আগস্ট রাঙ্গামাটি পুলিশ একটি মামলা দায়ের করে। মামলায় বলা হয়, এই তিন ব্যক্তি জঙ্গি ও রাষ্ট্র বিরোধী কাজে অর্থায়নের সাথে জড়িত।
এদের অর্থের উৎসের সন্ধানে রাঙ্গামাটি পুলিশের তরফ থেকে বাংলাদেশ ব্যাংকে চিঠি দেওয়া হয়। পুলিশের অনুরোধের পরিপ্রেক্ষিতে বাংলাদেশ ব্যাংকের আর্থিক গোয়েন্দা ইউনিট চট্টগ্রামের বিভিন্ন ব্যাংক তালাশ করে অভিযুক্ত ৩ জনের ব্যাংক হিসাব খুঁজে বের করে।
বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিদর্শনে দেখা যায়, ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকের চট্টগ্রামের দোভাসি বাজার শাখায় ডা. রান উইন সো ও মং প্রু চিং মারমা ব্যাংক হিসাব রয়েছে। যার হিসাব নং যথাক্রমে ১২৪১-২২০০-০০৬৬৩৯ ও ১২৪১-২২০০-০১১০৯৮। এছাড়া চিংনু মারমা কৃষি ব্যাংকের রাজস্থলী শাখার মাধ্যমে লেনদেন করেন। যার হিসাব নং-২৬৯৬। বাংলাদেশ ব্যাংকের পক্ষ থেকে এদের ব্যাংক হিসাব বন্ধ করতে ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক ও কৃষি ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে চিঠি দেওয়া হয়।
এ বিষয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ডা. রান উইন সো ও মং প্রু চিং মারমা এবং হলা চিংনু মারমা এর হিসাব সমূহের মাধ্যমে জঙ্গী ও রাষ্ট্র বিরোধী কার্যক্রমে অর্থায়ন করা হচ্ছে যা সন্ত্রাস বিরোধী আইন ২০০৯ এর ৬(১) (ক) (ই) ধারা মোতাবেক সন্ত্রাসী কার্য সংঘটনের অপরাধ হিসেবে সংজ্ঞায়িত। এই হিসাব সমূহের মাধ্যমে রাষ্ট্রবিরোধী কার্যক্রমে অর্থায়ন করা হয়ে থাকলে জননিরাপত্তা বিঘিœত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সেক্ষেত্রে হিসাবসমূহের হিসাব খোলার ফরম, কেওয়াইসি প্রোফাইল ফরম, হিসাব বিবরণী ও আনুষঙ্গিক কাগজপত্র বাংলাদেশ ব্যাংকে পাঠানোর নির্দেশ দেওয়া হয়। এছাড়া এ তিন ব্যক্তির ব্যাংক হিসাব স্থগিত করা হয়।
এই বিষয়ে জানতে চাইলে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক শুভঙ্কর সাহা বলেন, রাঙ্গামাটি পুলিশের অনুরোধের পরিপ্রেক্ষিতে আমরা চট্টগ্রামের কয়েকটি ব্যাংকে পরিদর্শন চালাই। এতে দেখা যায় এই তিন ব্যক্তির ফার্স্ট সিকিউরিটি ব্যাংক ও কৃষি ব্যাংকে হিসাব রয়েছে। আমরা এই সব অ্যাকাউন্ট স্থগিত রাখতে ব্যাংকগুলোকে নির্দেশ দিয়েছি।

পড়ে দেখুন

তৃণমূল সাংবাদিকতায় অবদানের জন্য বসুন্ধরা মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড পেলেন এ কে এম মকছুদ আহমেদ

॥ ডেস্ক রিপোর্ট ॥ সমাজের সুষ্ঠু বিকাশে অনুসন্ধানী সাংবাদিকতার গুরুত্ব তুলে ধরে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী …