শিরোনাম
প্রচ্ছদ / বান্দরবান / বান্দরবান ইটভাটা অনুসন্ধান কমিটি লামার ফাইতংয়ে ৪টি অবৈধ ইটভাটা ভেঙ্গে দিয়েছে ॥ আরো ৯টির যাবতীয় তথ্য সংগ্রহ

বান্দরবান ইটভাটা অনুসন্ধান কমিটি লামার ফাইতংয়ে ৪টি অবৈধ ইটভাটা ভেঙ্গে দিয়েছে ॥ আরো ৯টির যাবতীয় তথ্য সংগ্রহ

বান্দরবান ইটভাটা অনুসন্ধান কমিটি লামার ফাইতংয়ে ৪টি অবৈধ
ইটভাটা ভেঙ্গে দিয়েছে ॥ আরো ৯টির যাবতীয় তথ্য সংগ্রহ
॥ এস.কে খগেশপ্রতি চন্দ্র খোকন, লামা ॥ লামা উপজেলার ফাইতং ইউনিয়নে বান্দরবান ইটভাটা অনুসন্ধান কমিটি অনুসন্ধানে নেমে ৪টি ব্রিকফিল্ডের চিমনি ও কাচাঁ ইট সহ যাবতীয় সরঞ্জাম ভেঙ্গে দিয়ে ধ্বংস করে দিয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৩টা পর্যন্ত এই অভিযান পরিচালনা করে এই কমিটি। ফাইতং এলাকার ধ্বংসকৃত ব্রিকস গুলো হল, ইউবিএম-২, এইচবিএম, পিবিএম ও বিবিএম। এসময় অনুসন্ধান কমিটি আরো ৯টি ব্রিকস এর স্থাপনা, অবস্থান ও নানান তথ্য নিয়ে আসেন।
বান্দরবান ইটভাটা অনুসন্ধান কমিটি কর্তৃক অনুসন্ধানী অভিযানে নেতৃত্ব দেন কমিটির আহবায়ক ও বান্দরবান অতিরিক্ত জেলা প্রশাসন (সার্বিক) দিদারে আলম মো. মাকসুদ চৌধুরী। এসময় আরো ছিলেন, ইটভাটা অনুসন্ধান কমিটির সদস্য ও লামা উপজেলা নির্বাহী অফিসার খিন ওয়ান নু, লামা থানা অফিসার ইনচার্জ আনোয়ার হোসেন, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা নুরে আলম, লামা সদর রেঞ্জ কর্মকর্তা, পরিবেশ অধিদপ্তর, স্বাস্থ্য বিভাগের প্রতিনিধি সহ প্রমূখ।
অতিরিক্ত জেলা প্রশাসন (সার্বিক) দিদারে আলম মো. মাকসুদ চৌধুরী এই প্রতিবেদকে বলেন, বান্দরবান জেলা প্রশাসকের নির্দেশক্রমে ইটভাটা অনুসন্ধান কমিটি লামার ফাইতং এলাকায় এই অনুসন্ধানী অভিযান পরিচালনা করে। অভিযানে ৪টি ব্রিকস-এর চিমনি ও কাচাঁ ইট ভেঙ্গে ধ্বংস করা হয় এবং ৯টি ব্রিকসের যাবতীয় তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে। অভিযান চলমান থাকবে।
উল্লেখ্য, লামা উপজেলা ফাইতং এলাকায় ৫কিলোমিটারের মধ্যে নতুন পুরাতন মিলে ২৩টি ব্রিকফিল্ড রয়েছে। এছাড়া ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়নে ৩টি, সরই ১টি, লামা পৌরসভায় ১টি ও গজালিয়ায় ১টি ব্রিকফিল্ড রয়েছে।

পড়ে দেখুন

যথাযোগ্য মর্যাদায় বান্দরবানে একুশে ফেব্রুয়ারি ও আন্তর্র্জাতিক মার্তৃভাষা দিবস উদযাপন

॥ বান্দরবান প্রতিনিধি ॥ বর্ণাঢ্য কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে বান্দরবানে পালিত হচ্ছে অমর একুশে। একুশের প্রথম …