শিরোনাম
প্রচ্ছদ / অর্থনীতি / আসবাবে নতুন পণ্যের ছড়াছড়ি

আসবাবে নতুন পণ্যের ছড়াছড়ি

 

রাজধানীর শেরে বাংলা নগরে ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলায় (ঘড়ির কাঁটার দিকে) হাতিল, নাভানা, রিগাল ও ব্রাদার্স ফার্নিচারের প্যাভিলিয়নে ক্রেতা-দর্শনার্থীরা গতকাল আসবাব দেখেন l প্রথম আলোসোফায় বসে আড্ডা দিলেন। টেলিভিশন দেখলেন। প্রয়োজন হলে সেই সোফাই আবার টান দিয়ে বিছানা বানিয়েই রাতের ঘুম দিলেন। খাওয়ার পর ডাইনিং টেবিল ভাঁজ করে রাখলেন। সেই ভাঁজ করা টেবিলে সাজিয়ে দিলেন বাসনপত্র।
ঘরের জায়গা সাশ্রয়ের পাশাপাশি একাধিক কাজে ব্যবহার করা যায় এমনই কিছু নতুন ধরনের আসবাব নিয়ে এসেছে দেশে পরিচিত ব্র্যান্ড হাতিল। ব্র্যান্ডটি এসব আসবাবের নাম দিয়েছে ‘স্মার্ট ফিট ফার্নিচার’। দামটাও স্মার্ট, মানে একটু বেশি।
রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলায় (ডিআইটিএফ) আসবাব খাতের প্রথম সারির কয়েকটি ব্র্যান্ড প্রতিবারের মতো এবারও পণ্য প্রদর্শনের জন্য দৃষ্টিনন্দন প্যাভিলিয়ন নির্মাণ করেছে। মেলা উপলক্ষে প্রতিটি ব্র্যান্ডই নতুন নকশার আসবাব এনেছে। দিচ্ছে বিভিন্ন অঙ্কের মূল্যছাড়।
এদিকে মেলার বয়স মাত্র চার দিন। ক্রেতা-দর্শনার্থীদের উপস্থিতি এখনো কম। অধিকাংশ প্যাভিলিয়ন ও স্টল ফাঁকা। গতকাল বুধবার দুপুরে প্রায় তিন ঘণ্টা মেলা প্রাঙ্গণ ঘুরে এমন চিত্রই পাওয়া গেল। বিকেলের দিকে লোকজনের উপস্থিতি কিছুটা বাড়ে।
মেলার মূল ফটকের সামনেই হাতিলের তিনতলা প্যাভিলিয়ন। কানাডার ওক কাঠ দিয়ে আসবাব তৈরি করে হাতিল। তবে বিচ নামক কাঠ দিয়েও আসবাব করেছে। তাদের স্মার্ট ফিট ফার্নিচারের মধ্যে সোফা কাম বেড ৬১ হাজার থেকে ৭৫ হাজার টাকা, কেবিনেট কাম বেড ২ লাখ টাকা, চাইল্ড বেড কাম পড়ার টেবিল ৯৭ হাজার টাকা, ফোলডিং ডাইনিং টেবিল উইথ চেয়ার ৪৯ হাজার টাকায় মিলবে।
হাতিলের প্যাভিলিয়নের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অতুল প্রসাদ সরকার বলেন, ‘ঢাকায় ফ্ল্যাটের আকার দিনে দিনে ছোট হচ্ছে। সে জন্যই নতুন ধারণার স্মার্ট ফিট আসবাব নিয়ে আসা। অনেক ক্রেতাই হাতিলের এই উদ্যোগকে ধন্যবাদ দিচ্ছেন।’
এ ছাড়া মেলায় নতুন নকশার বেডরুম সেট, আলমারি, সোফা সেট, ডিভান, ডাইনিং সেট, কিচেন কেবিনেট, অফিসে ব্যবহার্য টেবিল এনেছে হাতিল। সব পণ্যেই ৫ থেকে ২০ শতাংশ মূল্যছাড় দিয়েছে তারা। সারা দেশের ৬৮টি বিক্রয়কেন্দ্র থেকেই এ সুবিধা পাবেন ক্রেতারা।
মেলা উপলক্ষে নাভানা ফার্নিচার নতুন দুটি বেডরুম সেট নিয়ে এসেছে। একটি বেড, সাইড টেবিল, আলমারি ও ড্রেসিং টেবিল নিয়ে বেডরুম সেট। দাম পড়বে ৭০ হাজার থেকে ৯০ হাজার টাকা। প্রতিষ্ঠানটির নতুন পণ্যের তালিকায় আরও আছে সোফা সেট, ডাইনিং টেবিল, আলমারি, রকিং চেয়ার ও অফিসে ব্যবহারের জন্য টেবিল। সব পণ্যেই প্রতিষ্ঠানটি ১৭ শতাংশ পর্যন্ত মূল্যছাড় দিচ্ছে। মেলার বাইরে নাভানার যেকোনো বিক্রয়কেন্দ্রেও মূল্যছাড়ের সুবিধাটি পাওয়া যাবে।
নাভানার জ্যেষ্ঠ নির্বাহী মামুন মীর বললেন, ক্রেতাদের কাছে নিজেদের পণ্য পরিচিত করতেই প্রতিবার মেলায় আসা। তবে এখনো মেলায় লোকজন কম। সামনের সপ্তাহ থেকে মেলায় ক্রেতা-দর্শনার্থীর ভিড় বাড়বে বলে ধারণা তাঁর।
লেমিনেটেড প্লাইউড ও রড আয়রনের পাশাপাশি এবার প্রথমবারের মতো ওক কাঠের তৈরি আসবাব নিয়ে এসেছে রিগাল ফার্নিচার। প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের এই প্রতিষ্ঠানের পণ্য তালিকায় আছে বেডরুম সেট, সোফা সেট, ড্রেসিং টেবিল, ডিভান, চেয়ার, আলমারি, ডাইনিং টেবিল, শোকেস, ক্যাবিনেট, পড়ার টেবিল, টিভি ট্রলি ইত্যাদি।
রিগালের কর্মকর্তা মামুন মীর বললেন, ‘মেলা উপলক্ষে সব পণ্যে ১০ শতাংশ মূল্যছাড় আছে। এ ছাড়া ক্রেতাদের বাসায় পৌঁছে দেওয়া ও আসবাব সংযোজন বিনা মূল্যে করে দিচ্ছি আমরা।’ তিনি বলেন, মূল্যছাড়সহ অন্য সুবিধাগুলো মেলার বাইরে রিগালের বিক্রয়কেন্দ্র থেকেও পাবেন ক্রেতারা।
নতুন নকশার বেড, বেডসাইড টেবিল, আলমারি, ডাইনিং টেবিল, সোফা, রকিং চেয়ারসহ বেশ কিছু পণ্য এনেছে আকতার ফার্নিচার। সব ধরনের আসবাবে ১২ শতাংশ পর্যন্ত মূল্যছাড়ের পাশাপাশি ‘এক লাখ টাকা ক্যাশব্যাক’ সুবিধা দিচ্ছে প্রতিষ্ঠানটি।
এ বিষয়ে প্রতিষ্ঠানের কর্মী এইচ এম খালিদ বলেন, কোনো ক্রেতা যদি এক লাখ টাকার আসবাব কেনেন কিংবা কয়েক লাখ টাকার আসবাব কিনে ১ লাখ টাকা পর্যন্ত কিস্তি পরিশোধ করেন, তবে তিনি একটি কুপন পাবেন। সেই কুপনের ড্র হবে পরদিন। তাতে একজন ক্রেতা ১ লাখ টাকা পর্যন্ত মূল্য ফেরতের সুবিধা পাবেন।
এ ছাড়া ব্রাদার্স, পারটেক্স, নাদিয়াসহ কয়েকটি প্রতিষ্ঠান মেলায় অংশ নিয়েছে। মাসব্যাপী বাণিজ্য মেলা প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত খোলা থাকছে।

পড়ে দেখুন

“চট্টগ্রাম বিভাগীয় পরিবেশ রক্ষা” পরিষদের নিয়মিত মাসিক সভা অনুষ্ঠিত

“চট্টগ্রাম বিভাগীয় পরিবেশ রক্ষা” পরিষদের নিয়মিত মাসিক সভায় সম্মানিত সভাপতি আলহাজ¦ আবুল কালাম আজাদ এর …