শিরোনাম
প্রচ্ছদ / খাগড়াছড়ি / আট দফা দাবীতে পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদ এর মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্টিত

আট দফা দাবীতে পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদ এর মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্টিত

আট দফা দাবীতে পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদ
এর মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্টিত

॥ খাগড়াছড়ি সংবাদদাতা ॥ পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদ খাগড়াছড়ি জেলা শাখা’র উদ্দ্যেগে ২০১৭ সালের এস.এস.সি পরিক্ষার প্রশ্নপ্রত্রে সংবিধান বিরোধী তথাকথিত ‘আদিবাসী’ শব্দের ব্যবহার, উপজাতি সশস্ত্র সন্ত্রাসী সংগঠন ইউপিডিএফ কর্তৃক চাদাঁর দাবীতে গত ২৩/০১/১৭ তারিখে রাঙামাটি সড়কে বাঙালি ব্যবসায়ীদের মালবাহি গাড়ি পুড়িয়ে দেওয়ার প্রতিবাদে এবং ক্ষতিপূরনের দাবীতে, মারিশ্যা সড়কে আরএফএলের গাড়ীতে গুলিবর্ষন, ২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর এস এম মাসুম রানার উপর হামলা ও গাড়ি পুড়িয়ে দেওয়ার প্রতিবাদে, রাঙ্গামাটি মেডিক্যাল কলেজ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী নিয়োগ এবং শিক্ষার্থী ভর্তির ক্ষেত্রে কেবল মাত্র উপজাতী (চাকমা) সম্প্রদায়কে অগ্রাধিকার দেওয়ার প্রতিবাদে এবং বাঙ্গালীসহ সকল ক্ষুদ্র সম্প্রদায়ের সমান সুযোগ সুবিধা প্রদান, বিতর্কিত ভূমি কমিশন সংশোধনী আইন’২০১৬ বাতিলসহ  আট দফা দাবীতে খাগড়াছড়ি শাপলা চত্ত্বরে এক বিশাল মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
২০১৭ এস.এস.সি পরীক্ষার প্রশ্নপত্রে বির্তকিত সংবিধান বিরোধী ‘আদিবাসী’ শব্দের ব্যবহার এবং প্রশ্নপ্রনেতাদের দৃষ্ঠান্ত মূলক শাস্তির দাবী, মহালছড়ি- নানিয়ারচরে সড়কে ব্যবসায়ীদের মালবাহী ট্রাকে অগ্নিসংযোগকারীদের গ্রেফতার এবং ক্ষতিপূরনের দাবী জানান। পাশাপাশি  ০২নং পৌর ওয়ার্ড কাউন্সিলর এবং বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের  জেলা শাখার সাধারন সম্পাদক এস.এম মাসুম রানার উপর হত্যার চেষ্ঠায় সকল হামলাকারীদের গ্রেফতার  এবং ক্ষতিপূরনের দাবী জানান। অন্যাথায় এস.এস.সি পরীক্ষার পরে  হরতাল, অবরোধ এবং কঠোর পর্যায়ের কর্মসূচী ঘোষনা করা হবে।
প্রধান বক্তা বলেন বিভিন্ন জায়গার  আমাদের নেতৃবৃন্দের উপর হামলা, ব্যবসায়ীদের গাড়ী পুড়িয়ে দেওয়া, কোটি কোটি টাকার চাঁদাবাজী ঘটনা ঘটলেও প্রশাসন বরাবরের  মতোই নিরব ভূমিকা পালন করছে। আমরা প্রশাসনের   এহেন নিরবতার তীব্র নিন্দ্র্ াও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। তিনি আরও বলেন, এস.এস.সি পরীক্ষা শেষ হওয়ার আগেই যদি মহালছড়ি ব্যবসায়ীদের ক্ষতিপূরন প্রদান করা না হয়,  রাঙ্গামাটি মেডিক্যাল কলেজ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক,কর্মকর্তা-কর্মচারী নিয়োগের ক্ষেত্রে বাঙ্গালীসহ সকল  ক্ষুদ্র সম্প্রদায়ের  সমান সুযোগ সুবিধ্ া নিশ্চিত করা  না হয় এবং বাঙ্গালী শিক্ষার্থীদের জন্য কোটা ব্যবস্থা  চালু করা না হলে, বিতর্কিত ভূমি কমিশন সংশোধনী আইন ২০১৬ বাতিল  করা না হলে এবং গুরুত্বপূর্ন স্পর্শ কাতর পাহাড়ী সড়ক সমূহে (দিঘীনালা-মারিশ্যা, রাঙ্গামাটি-খাগড়াছড়ি, খাগড়াছড়ি-মাটিরাঙ্গা) সাফ সেনা ক্যাম্প এবং  যৌথ বাহিনীর টহল বৃদ্ধি  করা না হলে আমরা পার্বত্য বাঙ্গালী  ছাত্র পরিষদ সর্বস্তরের বাঙ্গালী জনতাকে সাথে নিয়ে এস.এস.সি পরীক্ষা শেষে তীব্র আন্দোলন গড়ে তুলে দাবী আদায়ে প্রশাসনকে  বাধ্য করা হবে।
পাশাপাশি তিনি আগামী দিনের কর্মসূচীতে প্রশাসন,  গোয়েন্দা বিভাগ, ব্যবসায়ী মহল পরিবহন সেক্টর এবং সর্বস্তরের বাঙ্গালী ছাত্র জনতাকে  সহযোগীতা করার আহ্বান জানান।
উপজেলা সদর মাঠ থেকে  জেলা সাধারন সম্পাদক এস.এম. মাসুম রানা এবং  সাংগঠনিক সম্পাদক মো: মোস্তফা কামাল এর নেতৃত্বে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে শাপলা চত্ত্বরে  জেলা শাখার সহ-সভাপতি মনজুর আলম এর সভাপতিত্বে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
আরো বক্তব্য রাখেনঃ কেন্দ্রীয় সমান্বয় কমিটির সিনিয়র সদস্য রাসেল প্রধান (লেবু), পার্বত্য নাগরিক পরিষদ খাগড়াছড়ি জেলার শাখার যুগ্ন আহ্বায়ক এস.এম হেলাল, পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র  পরিষদের যুগ্ন সম্পাদক জাহিদুল ইসলাম জাহিদ, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক পারভেজ আহাম্মেদ, পানছড়ি উপজেলার সভাপতি সাইফুল ইসলাম চৌধুরি, মহালছড়ি উপজেলার সভাপতি জহিুরুল ইসলাম, দীঘিনালা উপজেলার সাধারন সম্পাদক আল- আমিন হোসেন, মাটিরাঙ্গা উপজেলার সিনি: সহ-সভাপতি শাহ আলমসহ খাগড়াছড়ি সরকারি কলেজ ও খাগড়াছড়ি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজ শাখার নেতৃবৃন্দ।

পড়ে দেখুন

অধিক শস্য ফলনের জন্য বিদ্যুৎ ব্যবহারে সবাইকে সাশ্রয়ী হবার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

॥ ডেস্ক রিপোর্ট ॥ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিদ্যুৎ ব্যবহারে সাশ্রয়ী হবার পাশাপাশি সকলকে সঞ্চয় করার …